ঢাকা, শুক্রবার, ১১ আষাঢ় ১৪২৮, ২৫ জুন ২০২১, ১৪ জিলকদ ১৪৪২

এভিয়াট্যুর

সৌদি এয়ারলাইন্সের বিশেষ ফ্লাইটের টিকিটের জন্য বিক্ষোভ

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১২০১ ঘণ্টা, এপ্রিল ১৭, ২০২১
সৌদি এয়ারলাইন্সের বিশেষ ফ্লাইটের টিকিটের জন্য বিক্ষোভ ছবি: বাংলানিউজ

ঢাকা: দেশে ছুটিতে এসে আটকে পড়া সৌদি প্রবাসীরা সৌদি এয়ারলাইন্সের বিশেষ ফ্লাইটের টিকিটের জন্য বিক্ষোভ করেছে রাজধানীর হোটেল সোনারগাঁওয়ের সামনে।

শনিবার (১৭ এপ্রিল) সকাল থেকে তারা রাজধানীর কারওয়ান বাজারে হোটেল সোনারগাঁওয়ের সামনে জড়ো হয়ে বিক্ষোভ প্রদর্শন করেন।

বিক্ষোভে অংশ নেওয়া কয়েকজন প্রবাসীর সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, তাদের ভিসার মেয়াদ এবং ছুটির মেয়াদ শেষ হয়ে যাচ্ছে। এমন অবস্থায় ফিরতে না পারলে তাদের হারাতে হবে চাকরি, পড়তে হবে নানা সমস্যায়।

ময়মনসিংহ থেকে আসা খোকন মিয়া নামের এক ব্যক্তি বলেন, আমার সৌদিতে ফেরার ডেট ছিল ১৪ এপ্রিল। এদিন ফিরতি টিকিটও করা ছিল। তবে লকডাউনের ফলে আমি ১২ এপ্রিল সৌদি এয়ারলাইন্সের অফিসে এসে যোগাযোগ করলে সেখান থেকে বলা হয় লকডাউন শেষে যোগাযোগ করতে। এখন বিশেষ ফ্লাইট চালু হয়েছে। ২৪ তারিখে আমার ছুটি শেষ হয়ে যাবে। এর ভেতরে যদি আমি পৌঁছাতে না পারি তাহলে আমার চাকরি যেমন থাকবে না, তেমনি ঋণের দেনা মাথায় নিয়ে ঘুরতে হবে।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আবুল বাশার বলেন, আমরা একটা সমাধান চাইছি। আমাদের টিকিটগুলো কবে হবে, বিশেষ ফ্লাইটে হবে কিনা, এর কোনো প্রভাব পড়বে কিনা, সেটি আমরা সুষ্ঠুভাবে জানতে চাইছি। কিন্তু সেই বিষয়ে সরকার বা কর্তৃপক্ষ আমাদের কিছুই বলছেন না।

মিজানুর রহমান মাসুদ নামের এক ব্যক্তি বলেন, আমার ফ্লাইট ছিল ১৭ এপ্রিল রাতে। লকডাউনের কারণে সব বন্ধ ছিল। এখন বিশেষ ফ্লাইট চালু হচ্ছে। আমি রাতে এই ফ্লাইটে যেতে পারবো কি পারবো না তা এখনো জানি না। আমাদের অনেকের সৌদি আরবের ফ্লাইট আছে আজ বা কাল। দু-একদিনের মধ্যেই আবার ভিসার মেয়াদ শেষ হয়ে যাবে। এই মুহূর্তে আমরা সৌদি আরবে যেতে পারবো কি পারবো না তা নিয়ে অনিশ্চয়তায় আছি।  

নজরুল ইসলাম নামে এক ব্যক্তি বলেন, আমার ফিরতি ফ্লাইট ছিল ১৫ এপ্রিল। কিন্তু লকডাউনের ফলে ফিরতে পারিনি। এখন ২০ এপ্রিল আমার ভিসার মেয়াদ শেষ। এই অবস্থায় যদি নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে ফিরতে না পারি তবে কি হবে জানি না।

এদিকে শনিবার (১৭ এপ্রিল) বন্ধ রয়েছে সৌদি এয়ারলাইন্স এর অফিস। অফিসে যোগাযোগ করেও কোনো কর্মকর্তাকে পাওয়া যায়নি। তবে বিষয়টি নিয়ে কথা বলার জন্য ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা আসবেন এবং একটি সিদ্ধান্ত বা মতামত জানাবেন বলে জানানো হয়েছে।  

এ বিষয়ে সৌদি এয়ারলাইন্সের হোটেল সোনারগাঁও অফিসের এক ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তার সঙ্গে মোবাইলে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও তার সঙ্গে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি।

বাংলাদেশ সময়: ১২০১ ঘণ্টা, এপ্রিল ১৭, ২০২১
এইচএমএস/এইচএডি/

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa