bangla news

শিল্পীদের তুলিতে অরণ্যে ফিরে যাওয়ার আকুতি

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১০-১২-২৮ ২:৩৯:০০ এএম

জাতিসংঘ ২০১১ সালকে ‘আন্তর্জাতিক বনবর্ষ’ ঘোষণা করেছে। জাতিসংঘের এই ঘোষণাকে বিষয় করে গত অক্টোবরে ১২ জন বিখ্যাত শিল্পীর অংশগ্রহণে ব্রিটিশ আমেরিকান টোবাকোর সহযোগিতায় কুষ্টিয়ায় একটি আর্ট ক্যাম্প আয়োজন করে বেঙ্গল গ্যালারি।

জাতিসংঘ ২০১১ সালকে ‘আন্তর্জাতিক বনবর্ষ’ ঘোষণা করেছে। জাতিসংঘের এই ঘোষণাকে বিষয় করে গত অক্টোবরে ১২ জন বিখ্যাত শিল্পীর অংশগ্রহণে ব্রিটিশ আমেরিকান টোবাকোর সহযোগিতায় কুষ্টিয়ায় একটি আর্ট ক্যাম্প আয়োজন করে বেঙ্গল গ্যালারি। এখানে শিল্পীরা মূলত গাছপালা ও বনকে বিষয় করে ছবি আঁকেন, যার মধ্যে উঠে এসেছে যেমন গাছ লাগানোর বিষয়, গাছ আর পশুপাখিতে ভরা জঙ্গল, তেমনি উঠে এসেছে গাছা কাটার ফলে আমরা কীভাবে সবুজহীন পৃথিবীর দিকে যাচ্ছি, সে প্রসঙ্গও।

২৭ ডিসেম্বর ২০১০ থেকে ধানমন্ডির বেঙ্গল গ্যালারিতে শুরু হলো আর্ট ক্যাম্পে আঁকা শিল্পীদের সেই সব ছবি নিয়ে তিন দিনব্যাপী প্রদর্শনী। ‘অরণ্যে ফিরে যাওয়া’ শিরোনামে এ প্রদর্শনীতে স্থান পেয়েছে ১২ জন শিল্পীর কাজ। সবারই বিষয় হিসেবে এসেছে ‘বন’।

প্রদর্শনীর উদ্বোধন করেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। তিনি বলেন ‘আজকের যে বিষয়ে প্রদর্শনী সেটা খুবই প্রয়োজন বাংলাদেশের জন্য। বনায়নে বিশ্ব সংস্থার হিসেবে আমাদের বনায়ন কমে গেছে। আমাদের দেশের জনসংখ্যা যে হারে বেড়েছে সেখানে বনের এ হাল হওয়া খুবই স্বাভাবিক একটি ঘটনা। এক্ষেত্রে এই ধরনের আয়োজন যেখানে বনের সংকট ও বিভিন্ন বিষয় উঠে এসেছে সেটা নিশ্চয়ই সময়োপযোগী একটি বড় আয়োজন।’

অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন বি এ টি বাংলাদেশ-এর চেয়ারম্যান গোলাম মাঈনুদ্দীন, শিল্পী কাইয়ুম চৌধুরী এবং বেঙ্গল গ্যালারির পরিচালক সুবীর চৌধুরী।

শিল্পী কাইয়ুম চৌধুরী বলেন ‘প্রকৃতি ছাড়া মানুষ নেই। সুতরাং প্রকৃতিকে আমরা যদি রক্ষা করতে না পারি তবে মানবজাতী রক্ষা পাবে না। আমরা আমাদের ভবিষ্যত প্রজন্মকে রক্ষার জন্য কী পৃথিবী রেখে যাব সেটা আমাদের ভাবতে হবে। আশা করছি আমরা বাসযোগ্য পৃথিবী রেখে যেতে পারব।’

প্রদর্শনীতে অংশগ্রহণকারী শিল্পীরা হলেন কাইয়ুম চৌধুরী, সৈয়দ জাহাঙ্গীর, হাশেম খান, রফিকুন নবী, মাহমুদুল হক, কালিদাস কর্মকার, শহীদ কবির, মনসুর উল করিম, ফরিদা জামান, নাসরিন বেগম, দিলারা বেগম জলি এবং কনক চাঁপা চাকমা।

প্রদর্শনী চলবে দুপুর ১২টা থেকে রাত ৮ টা পর্যন্ত। শেষ হবে ২৯ ডিসেম্বর।


বাংলাদেশ স্থানীয় সময় ১৩৩৫, ডিসেম্বর ২৮, ২০১০

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2010-12-28 02:39:00