[x]
[x]
ঢাকা, বুধবার, ১০ আশ্বিন ১৪২৫, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮
bangla news

নাগেশ্বরী নির্বাচন কর্মকর্তার অনিয়ম-দুর্নীতির তদন্ত

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৮-০৪-১১ ৬:৩৮:৩৩ এএম
নাগেশ্বরী উপজেলা

নাগেশ্বরী উপজেলা

কুড়িগ্রাম: কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরী উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা শাহজাহান মানিকের অনিয়ম, অপব্যবহার ও দুর্নীতির বিষয়ে সরেজমিনে তদন্ত করা হয়েছে।

বুধবার (১১ এপ্রিল) বিকেল সাড়ে ৩টা পর্যন্ত নাগেশ্বরী সার্ভার স্টেশন ও উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তার কার্যালয়ে দিনব্যাপী এ তদন্ত কার্যক্রম পরিচালিত হয়।

রংপুর আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা জিএম সাহাতাব হোসেনের নেতৃত্বে তিন সদস্যর কমিটি এই তদন্ত পরিচালনা করেন। এসময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন কুড়িগ্রাম জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর আলম।

তদন্ত চলাকালীন সময়ে বিভিন্ন অভিযোগ ও অনিয়মের লিখিত কাগজপত্র তদন্ত কমিটির কাছে জমা দেয় সাংবাদিক ও ভুক্তভোগী অভিযোগকারীরা। 

তদন্ত কমিটি সাংবাদিকদের সঙ্গে বৈঠককালে উপস্থিত ছিলেন- প্রেসক্লাব নাগেশ্বরীর সভাপতি লিটন চৌধুরী, টেলিভিশন সাংবাদিক ফোরাম সাধারণ সম্পাদক ইউসুফ আলমগীর, সাংবাদিক লাইলী বেগম, জোবায়ের সিদ্দিকী স্বপন, মনোয়ার হোসেন সিদ্দিকী, কীর্ত্তিকা সেন বিল্টু, বাদশাহ সৈকত, পাভেল জামান, সফিউল আলম সফি প্রমুখ।

তদন্তকারী কর্মকর্তা ও রংপুর আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা জিএম সাহাতাব হোসেন জানান, ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তার নির্দেশে শাহজাহান মানিকের বিরুদ্ধে তদন্ত করা হয়েছে। অভিযোগকারী ও সাংবাদিকদের সঙ্গে সাক্ষাৎ হয়েছে। যথাযথ কর্তৃপক্ষের কাছে তদন্ত প্রতিবেদন যথা সময়ে পাঠানো হবে। 

কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরী উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা শাহজাহান মানিকের অনিয়ম, অপব্যবহার ও দুর্নীতি নিয়ে বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে সংবাদ প্রচারিত হওয়ার প্রেক্ষিতে তার বিরুদ্ধে তদন্ত পরিচালিত হয়।

ওই কর্মকর্তা প্রায় ৩ শতাধিক ব্যক্তির কাছে ট্রেজারি চালানের মাধ্যমে টাকা না নিয়ে প্রায় ৭০ হাজার টাকা নগদে গ্রহণ করে আত্মসাৎ করেন। এছাড়াও প্রায় সময় বিভিন্ন ব্যক্তির সঙ্গে অসৌজন্যমূলক আচরণ করারও অভিযোগ রয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৬৩৮ ঘণ্টা, এপ্রিল ১১, ২০১৮
এফইএস/জিপি

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

নির্বাচন ও ইসি বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত

Alexa