ঢাকা, রবিবার, ৮ কার্তিক ১৪২৮, ২৪ অক্টোবর ২০২১, ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০১৯

সিসা গ্রহণে আইসিসি-আইটিএফসহ সরফরাজদের বিরুদ্ধে মামলা

ওয়ার্ল্ড কাপ ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১৫৯ ঘণ্টা, জুলাই ৯, ২০১৯
সিসা গ্রহণে আইসিসি-আইটিএফসহ সরফরাজদের বিরুদ্ধে মামলা পাকিস্তান ক্রিকেট দল: ছবি-সংগৃহীত

বিশ্বকাপ ক্রিকেটে ভারতের বিপক্ষে ম্যাচের আগে গভীর রাতে বারে গিয়ে সিসা গ্রহণের জন্য মামলা করা হয়েছে চার পাকিস্তানি ক্রিকেটার ও কয়েকটি বোর্ডের বিরুদ্ধে।

অভিযুক্ত চার পাকিস্তানি ক্রিকেটার শোয়েব মালিক, ওয়াহাব রিয়াজ, ইমাম-উল-হক ও অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদ। এছাড়াও এ মামলায় অন্তর্ভুক্ত রয়েছে শোয়েব মালিকের স্ত্রী ভারতীয় টেনিস তারকা সানিয়া মির্জার নাম।

আর খেলোয়াড়দের পাশাপাশি পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি), ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি) এবং ইন্টারন্যাশনাল টেনিস ফেডারেশনের (আইটিএফ) নামও অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে মামলায়।  

পাকিস্তানের সিন্ধ হাইকোর্টে এ বিষয়ে মামলা করেছেন পাকিস্তানি আইনজীবী অবদুল জলিল মারওয়াত। তার দাবি, সিসা গ্রহণের কারণেই মাঠে খারাপ পারফরম্যান্স করেছে পাকিস্তান দল।

অভিযোগপত্রে বলা হয়েছে, ‘গুরুত্বপূর্ণ এই ম্যাচটিতে অভিজ্ঞ খেলোয়াড় শোয়েব মালিক কোন রানই করেননি, ইমাম-উল-হক করেছেন মাত্র ৭ রান এবং ওয়াহাব রিয়াজ মাত্র একটি উইকেট নিয়েছেন। ’

বিষয়টিতে অবশ্য এক প্রকার সম্মতি জানিয়েছেন ইমরান খান সরকারের মানবাধিকার বিষয়ক মন্ত্রী শেরেন মাজারি। এ বিষয়ে তিনি বলেছেন, ‘ম্যাচের কয়েক ঘণ্টা আগে যখন তারা সিসা গ্রহণ করে, তখন তাদের থেকে অপমান ছাড়া আর কিইবা আশা করা যায়!’ 

গত ১৬ জুন বিশ্বকাপ ক্রিকেটের ওই ম্যাচে পাকিস্তানকে ৮৯ রানে হারায় ভারত। ম্যাচের পর সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ছড়িয়ে পড়া কিছু ভিডিও ফুটেজে দাবি করা হয়, ভারতের সঙ্গে গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচের আগে রাত ২টার দিকে সিসা বারে ছিলেন পাকিস্তান জাতীয় দলের কয়েকজন তারকা ক্রিকেটার। ভিডিওতে পাকিস্তানি অলরাউন্ডার শোয়েব মালিক, তার স্ত্রী ভারতের টেনিস তারকা সানিয়া মির্জা, ফাস্ট বোলার ওয়াহাব রিয়াজ ও ব্যাটসম্যান ইমাম-উল-হককে ম্যানচেস্টারের একটি সিসা বারে দেখা যায়।

এসময় কয়েকজন ক্রিকেট ভক্ত দাবি করেন, তারা রাত ২টার দিকে শোযেব মালিককে সিসা গ্রহণ করতে দেখেছেন। অন্য ক্রিকেটারদেরও বার্গার-পিজ্জার মতো ‘জাঙ্ক ফুড’ খেতে দেখেছেন। যদিও রাতে বাইরে থাকাটা কোনো অপরাধ নয়, তবু অনেক ক্রিকেটভক্তই তা মানতে নারাজ। তাদের মতে, রাতে বাইরে আড্ডা দেওয়া, সিসা-জাঙ্ক ফুড খাওয়ায় ক্রিকেটারদের মনোসংযোগ ও ফিটনেস নষ্ট হয়েছে। আর এর প্রভাব পড়েছে ম্যাচের পারফরমেন্সে।

বাংলাদেশ সময়: ১৭৫৮ ঘণ্টা, জুলাই ০৯, ২০১৯
এইচএমএস/ইউবি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০১৯ এর সর্বশেষ

Alexa