ঢাকা, সোমবার, ৪ ভাদ্র ১৪২৬, ১৯ আগস্ট ২০১৯
bangla news

শেষ চার নিশ্চিতের লড়াইয়ে মুখোমুখি ভারত-ইংল্যান্ড

ওয়ার্ল্ড কাপ ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৬-৩০ ১২:৪২:৫৫ এএম
রবিবার মুখোমুখি হচ্ছে ভারত ও ইংল্যান্ড: ছবি-সংগৃহীত

রবিবার মুখোমুখি হচ্ছে ভারত ও ইংল্যান্ড: ছবি-সংগৃহীত

এবারের বিশ্বকাপে ভারত এখনও অপরাজিত। ছয় ম্যাচ খেলে পাঁচটিতেই জয় তুলে নিয়েছে বিরাট কোহলিরা। নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে ম্যাচটি বৃষ্টির জন্য ভেস্তে গিয়েছে। বিশ্বকাপের পয়েন্ট টেবিলে দ্বিতীয় স্থানে থাকা ভারত এবার নামছে পাঁচ নম্বরে থাকা ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে।

রোববার (৩০ জুন) বার্মিংহ্যামের এজবাস্টনে বাংলাদেশ সময় বিকেল সাড়ে ৩টায় শুরু হওয়া লড়াইটা তাই হবে হাড্ডাহাড্ডি। এই ম্যাচ জিতলেই সেমিফাইনাল নিশ্চিত হয়ে যাবে ভারতের। যে কারণে কোনও ভাবেই এই ম্যাচ হাতছাড়া করতে চাইবে না ভারতীয় শিবির। সঙ্গে লক্ষ্য থাকবে জয়ের ধারা অব্যাহত রাখার।

অন্যদিকে ইংল্যান্ডের সামনে ঘুরে দাঁড়ানোর লক্ষ্য। এক তো আয়োজক দেশ, তার উপর প্রথম থেকে বিশ্বকাপ জয়ের অন্যতম দাবিদার হিসেবে উঠে আসা দলটি পাকিস্তান, শ্রীলঙ্কা ও অস্ট্রেলিয়ার কাছে হেরে অনেকটাই পিছিয়ে পড়েছে। ভারতের বিরুদ্ধে জিতে আবার ঘুরে দাঁড়াতে চাইবে তারা। ফলে এই ম্যাচে এক ইঞ্চি জমিও যে কেউ ছাড়বে না তা স্পষ্ট। ইংল্যান্ডের হার তাদের ছিটকে দেওয়ার জন্য যথেষ্ট।

তার থেকেও বড় ব্যাপার, এই ম্যাচে জিতলে ইংল্যান্ড অনেকটাই এগিয়ে যাবে সেমিফাইনালের পথে। আর তাতে বিপাকে পড়বে বাংলাদেশ ও পাকিস্তান। তাই সকলেরই প্রত্যাশা থাকবে এই ম্যাচে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ভারতের জয়।

২০১৫ বিশ্বকাপে ইংল্যান্ড প্রথম পর্ব থেকেই ছিটকে গিয়েছিল। কিন্তু গত চার বছরে দলটির অনেক পরিবর্তন হয়েছে। ব্যাটে-বলে এতটাই উন্নতি করেছে যে টুর্নামেন্ট শুরুর আগে সব বিশেষজ্ঞের মুখে প্রথম নাম হিসেবে বার বার উঠে এসেছে ইংল্যান্ডেরই কথা। কিন্তু সেই আশায় তারা নিজেরাই জল ঢেলে দিয়েছে তাদের পারফরম্যান্স দিয়ে। শুরুটা ভাল করলেও পরের দিকে মার খেয়েছে ইংল্যান্ড। হয়তো কিছুটা প্রত্যাশার চাপও তাদের সমস্যায় ফেলেছে। একে তো ঘরের মাঠে খেলা। সমর্থকদের চাপ অনেকটাই বেশি। বাকি দলের সেই সমস্যা নেই। সঙ্গে মনে করা হচ্ছে পরিকল্পনার অভাব। যা আধুনিক সময়ের ক্রিকেটের সঙ্গে লড়াইয়ে তাদের পিছিয়ে দিচ্ছে।

রোববার এজবাস্টনের পিচে ইংল্যান্ড ব্যাটসম্যানদের সামলাতে হবে ভারতের স্পিনারদের। বিশ্বকাপের সব ভেন্যুর মধ্যে এজবাস্টনের পিচে অনেক বেশি ঘূর্ণি রয়েছে। তবে ইংল্যান্ডের স্বস্তি যে, তারা ফিরে পেতে পারেন জেসন রয়কে। হ্যামস্ট্রিং চোটের কারণে গত দুই ম্যাচ খেলতে পারেননি এই ইংলিশ ওপেনার।

এদিকে দুর্দান্ত ফর্মে রয়েছেন কোহলি-ধোনিরা। চোট শঙ্কার মধ্যেই আফগানিস্তান ম্যাচের আগে অনুশীলনে ফিরেছেন বিজয় শঙ্কর। ফলে স্বস্তি আছে সেখানও। আর শুধু জার্সি ছাড়া ভারতীয় দলে তেমন কিছু পরিবর্তন হওয়ার সম্ভাবনা নেই। এদিন ভারত দলকে দেখা যাবে নতুন কমলা রঙের জার্সিতে। সে রঙে রঙিন হয়ে নিজেদের শক্তি দিয়েই ইংল্যান্ডের মাটিতেই ইংল্যান্ডের স্বপ্ন ভঙ্গ করতে মাঠে নামবে ভারত।

ইংল্যান্ডের সম্ভাব্য একাদশ: ইয়ন মরগান (অধিনায়ক), মঈন আলী, জনি বেয়ারস্টো, জস বাটলার (উইকেটরক্ষক), আদিল রশিদ, জো রুট, জেসন রয়, বেন স্টোকস, লিয়াম ডসন, ক্রিস ওকস এবং মার্ক উড।

ভারতের সম্ভাব্য একাদশ: বিরাট কোহলি (অধিনায়ক), রোহিত শর্মা, লোকেশ রাহুল, বিজয় শংকর, মহেন্দ্র সিং ধোনি (উইকেটরক্ষক), যুজভেন্দ্র চাহাল, কুলদীপ যাদব, ভুবনেশ্বর কুমার, জসপ্রিত বুমরাহ, হার্দিক পান্ডিয়া, রবীন্দ্র জাদেজা ও মোহাম্মদ শামি।

বাংলাদেশ সময়: ০০৪১ ঘণ্টা, জুন ৩০, ২০১৯
এইচএমএস/ইউবি/এমকেএম

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০১৯ CWC19
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-06-30 00:42:55