[x]
[x]
ঢাকা, সোমবার, ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫, ২১ মে ২০১৮

bangla news

স্ত্রী-কন্যাকে স্বাভাবিক জীবনে আনতে চান সাবেক জঙ্গিনেতা

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৮-০৫-১২ ৭:২৭:৪৬ পিএম
রঞ্জিৎ দেববর্মা। ছবি: বাংলানিউজ

রঞ্জিৎ দেববর্মা। ছবি: বাংলানিউজ

আগরতলা: ত্রিপুরা রাজ্যের নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠন ‘অল ত্রিপুরা টাইগার ফোর্স’ (এটিটিএফ) এর এক সময়ের দুর্ধর্ষ স্বঘোষিত সুপ্রিমো রঞ্জিৎ দেববর্মা আত্মসমর্পণের পর এখন স্বাভাবিক জীবন-যাপন করছেন। বর্তমানে তিনি ত্রিপুরার পশ্চিম জেলার অন্তর্গত মোহনপুর এলাকায় নিজ বাড়িতে রয়েছেন।

তবে তার স্ত্রী কাজল দেববর্মা ও মেয়ে সিজান দেববর্মা এখনও মিয়ানমারের জঙ্গলে জঙ্গি শিবিরে রয়েছেন। তারাও গোলা-বারুদ ও জঙ্গলের জীবন ছেড়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরে ভারতের অন্য সব সাধারণ নাগরিকদের মতো জীবন-যাপন করতে চান।

শনিবার (১২ মে) বাংলানিউজকে দেওয়া একান্ত সাক্ষাৎকারে এসব কথা জানান রঞ্জিৎ দেববর্মা।

তারা যাতে দ্রুত স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসতে পারে এর জন্য রঞ্জিৎ নিজে ত্রিপুরা রাজ্যের সাবেক মুখ্যমন্ত্রী থেকে শুরু করে বর্তমান মুখ্যমন্ত্রীর কাছে লিখিত আবেদন জানিয়েছেন।

তার আশা দ্রুত স্ত্রী ও কন্যাকে স্বাভাবিক জীবনে নিয়ে আসার জন্য সরকার উদ্যোগ গ্রহণ করবে। তারা ফিরে এলে তাদের নিয়ে সুখে জীবন-যাপন করতে পারবেন।

এখনও মিয়ানমারের জঙ্গলে শিবিরে এটিটিএফ সংগঠনের ৬০ জনের বেশি সদস্য রয়েছে। এটিটিএফ, ত্রিপুরার অন্য আরো একটি নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠন এনএলএফটিসহ উত্তরপূর্ব ভারতের অন্য রাজ্যের আরও কিছু জঙ্গি সংগঠনের সদস্যরা এক সঙ্গে শিবিরে রয়েছে।

এটিটিএফ এবং এনএলএফটির অন্য সদস্যরাও স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসতে আগ্রহী বলেও জানান রঞ্জিৎ।

বাংলাদেশ সময়: ১৯২৪ ঘণ্টা, মে ১২, ২০১৮
এসসিএন/আরবি/

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa