কুষ্টিয়ার ক্ষুদে সাঁতারু আরিফের সাফল্য
[x]
[x]
ঢাকা, সোমবার, ৫ ভাদ্র ১৪২৫, ২০ আগস্ট ২০১৮
bangla news

কুষ্টিয়ার ক্ষুদে সাঁতারু আরিফের সাফল্য

মো. জাহিদ হাসান জিহাদ, ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৮-০৫-১৫ ১১:০৪:২৪ এএম
জাতীয় শিশু পুরস্কার প্রতিযোগিতায় স্বর্ণপদক জয় করার পরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সুইমিং পুলে সাঁতারু আরিফ আলী

জাতীয় শিশু পুরস্কার প্রতিযোগিতায় স্বর্ণপদক জয় করার পরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সুইমিং পুলে সাঁতারু আরিফ আলী

কুষ্টিয়া: মাত্র ১০ বছর বয়সী আরিফ আলীর লক্ষ্য ভালো সাঁতারু হওয়া। এই বয়সে সে সাঁতারের মাধ্যমে জয় করেছে সারাদেশ। অর্জন করেছে স্বর্ণপদক। 

কুষ্টিয়ার মিরপুর উপজেলার আমলা ইউনিয়নের আমলা খামারপাড়া এলাকার কাঠ মিলের শ্রমিক আজিবার আলী শেখের ছোট ছেলে আরিফ। উপজেলার সদরপুর সিদ্দিকীয়া দাখিল মাদ্রাসার ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্র। জাতীয় শিশু পুরস্কার প্রতিযোগিতা-২০১৮ জাতীয় পর্যায়ে ১০০ মিটার ফ্রিস্টাইল সাঁতারে স্বর্ণপদক অর্জন করেছে সে। 

তৃতীয় শ্রেণিতে অধ্যয়নকালে আরিফ সাঁতারে অংশ নেয়। তার পর থেকে আর পেছনে ফিরে তাকানোর প্রয়োজন হয়নি। উপজেলা, জেলা, বিভাগের গন্ডি পেরিয়ে সে জাতীয় পর্যায়ে স্বর্ণপদক অর্জন করেছে। পাড়া গায়ের পুকুরে সাঁতার কেটে নানা বাধা অতিক্রম করে এ সাফল্য অর্জন তার।
কৃতি সাঁতারু আরিফ আলী’র বিভিন্ন পদক
ক্ষুদে সাঁতারু আরিফ আলী বাংলানিউজের জানায়, ‘একটাই স্বপ্ন ভালো সাঁতারু হওয়া এবং দেশের জন্য কিছু করা। ২০১৫ সাল তখন আমি তৃতীয় শ্রেণিতে পড়ি। সে সময় আমার বড় ভাই আশিক শেখ জাতীয় পর্যায়ে জুনিয়ার গেমসে ৪টি রৌপ এবং ৩টি ব্রোঞ্চ অর্জন করে। বড় ভাইকে দেখেই আমি সাঁতারু হওয়ার স্বপ্ন দেখা শুরু করি। তার পর থেকেই লেখাপড়ার পাশাপাশি সাঁতার শিখছি।’

সে আরও জানায়, ‘২০১৬ সালে স্কুল পর্যায়ে কুষ্টিয়ায় বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতায় সাঁতারে অংশ নিয়ে ২ ইভেন্টে প্রথম স্থান অধিকার করি। একই বছরে ঢাকায় জুনিয়র গেমসে অংশ নিয়ে ২ ইভেন্টে দ্বিতীয় স্থান অধিকার করি। ইন্টারস্কুল সাঁতার প্রতিযোগিতায় এবং ২০১৮ সালে বাংলাদেশ শিশু একাডেমিতে ৬টির মধ্যে ৫টিতে প্রথম হয়েছি। সর্বশেষ গত ১৩ মে জাতীয় শিশু পুরস্কার প্রতিযোগিতা-২০১৮ জাতীয় পর্যায়ে ১০০ মিটার সাঁতারে স্বর্ণপদক অর্জন করেছি। আমি রুবেল রানার (সাব গেমস এ স্বর্ণপদক জয়ী) মতো সাঁতারু হতে চাই।’

ক্ষুদে সাঁতারু আরিফের বাবা আজিবার আলী বাংলানিউজকে বলেন, ‘আমি আমার দুই সাঁতারু ছেলেকে নিয়ে গর্ববোধ করি। আমি তাদের সর্বদা সাফল্য কামনা করি।’

এ ব্যাপারে সদরপুর সিদ্দিকীয়া দাখিল মাদ্রাসার সহকারী শিক্ষক (ক্রীড়া) হাবিবুর রহমান বাংলানিউজকে বলেন, আরিফ আলী আমাদের মাদ্রাসার ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্র। সে খুব ভালো সাঁতারু। মাদ্রাসা থেকে সাঁতারুদের জন্য বিভিন্ন সুযোগ-সুবিধা দিয়ে উৎসাহিত করা হয়ে থাকে। আরিফ বর্তমানে বাংলাদেশ আনসার ও ভিডিপি থেকে সাঁতার প্রশিক্ষণ নিচ্ছে।
কুষ্টিয়ার মিরপুরের আমলায় একটি পুকুরে সাঁতার কাটছে সাঁতারুরা বাংলাদেশ আনসার ও ভিডিপি’র সাঁতার কোচ কামাল হোসেন বাংলানিউজকে বলেন, আরিফের এ সাফল্য সাঁতারুদের আরও উৎসাহিত করবে। ফ্রিস্টাইল, ব্লাটারফ্লাই, ব্যাক স্টোকসহ বেস্ট স্টোক সাঁতারে প্রশিক্ষণ নিয়েছে। আগামীতে সে আরও ভালো কিছু অর্জন করবে বলে আশা করছি।

বাংলাদেশ সুইমিং ফেডারেশনের সাবেক যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক আমিরুল ইসলাম বাংলানিউজকে বলেন, সাঁতারে কুষ্টিয়ার সাঁতারুরা তাদের সাফল্য ধরে রেখেছে। নানা সমস্যার সম্মুখিন হয়েও আমলার সাঁতারুরা সাফল্য অর্জন করেছে।

এরই ধারাবাহিকতায় রোববার (১৩ মে) ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সুইমিং পুলে জাতীয় শিশু পুরস্কার প্রতিযোগিতায় কুষ্টিয়ার আমলার সাঁতারু আরিফ আলী ও মেয়েদের গ্রুপে ছাত্রী মিম স্বর্ণ পদক জয় করেছে।

বাংলাদেশ সময়: ১১০৪ ঘণ্টা, মে ১৫, ২০১৮
জিপি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa