[x]
[x]
ঢাকা, শুক্রবার, ৫ শ্রাবণ ১৪২৫, ২০ জুলাই ২০১৮

bangla news

রোনালদোকে টপকে লরিয়াস বর্ষসেরা ফেদেরার

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৮-০২-২৮ ৪:৪৯:৩৪ পিএম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

ক্রীড়া অস্কার খ্যাত লরিয়াস স্পোর্টস অ্যাওয়ার্ডস বর্ষসেরা ক্রীড়াবিদের মুকুট জিতেছেন রজার ফেদেরার। সবচেয়ে বেশি বয়সে টেনিসের নাম্বার ওয়ান পজিশনে ফেরার পর এই মর্যাদাপূর্ণ স্বীকৃতি পেলেন সুইস কিংবদন্তি।

২০১৭ সালে দু’টি গ্র্যান্ড স্লাম ইভেন্ট অস্ট্রেলিয়ান ওপেন ও উইম্বলডন জয় করেন ফেদেরার। হাঁটুর ইনজুরিতে ৬ মাস কোর্টের বাইরে থেকে দুর্দান্ত প্রত্যাবর্তনের দৃষ্টান্ত স্থাপন করেন। এরই সুবাদে কামব্যাক অব দ্য ইয়ার পুরস্কারও জিতে নিয়েছেন আইকনিক সুপারস্টার।

এ বছরও শুরু করেছেন অস্ট্রেলিয়ান ওপেন জিতে। প্রথম পুরুষ খেলোয়াড় হিসেবে স্পর্শ করেন ২০টি গ্র্যান্ড স্লাম সিঙ্গেল টাইটেলের মাইলফলক। ৩৬ বছর বয়সে পুনরুদ্ধার করেছেন র‌্যাংকিংয়ের শীর্ষস্থান।

ছবি: সংগৃহীতমোনাকোতে তারকাখচিত জমকালো অনুষ্ঠানে পুরো আলোটা কেড়ে নেন ফেদেরার। এ নিয়ে ছয়বার লরিয়াস অ্যাওয়ার্ড জিতলেন তিনি। পাঁচটিই বর্ষসেরা ক্রীড়াবিদের। কামব্যাক অ্যাওয়ার্ড জিতে নিজের অনুভূতি প্রকাশ করতে গিয়ে বলেন, ‘গত বছরটা ছিল অন্যরকম। এটা ছিল স্বপ্ন সত্যি হওয়ার মতো এবং আমি সবাইকে ধন্যবাদ দিতে চাই যারা আমাকে ফিরিয়ে এনেছে, আমার ডাক্তার যিনি আমার অপারেশন করেছেন, আমার ফিজিও এবং আমার ফিটনেস কোচ।’

রাফায়েল নাদাল, ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো ও সংক্ষিপ্ত তালিকার তিন ব্রিটিশ হ্যামিল্টন, মোহাম্মদ ফারাহ ও ক্রিস ফ্রুমকে টপকে সেরার আসনে বসেন ফেদেরার। উচ্ছ্বাস ঝরে তার কণ্ঠে, ‘এটা আমার কাছে একটা বিশেষ মুহূর্ত।’ টেনিসের প্রতিদ্বন্দ্বী নাদালের প্রশংসা করতেও ভোলেননি, ‘রাফাও (রাফায়েল) চমৎকার একটি বছর কাটিয়েছে। আমাদের লড়াইটা অসাধারণ। কারণ তার মতো একজনের কারণে আমি একজন ভালো খেলোয়াড় এবং এই অ্যাওয়ার্ডটি নিয়ে সেও এখানে দাঁড়াতে পারতো। সে একজন অসাধারণ খেলোয়াড়, বন্ধু ও অ্যাথলেট।’

‘এই পুরস্কার গ্রহণ করাটা সম্মানের। সবাই জানে আমি লরিয়াস অ্যাওয়ার্ডকে কতটা মূল্যায়ন করি। তাই আরেকটি জিততে পারাটা হবে চনৎকার। দু’টি হবে অনন্য সম্মানজনক। আমি উচ্ছ্বসিত এবং লরিয়াস একাডেমিকে তাদের সমর্থনের জন্য ধন্যবাদ দিতে চাই।’-যোগ করেন ফেদেরার।

ছবি: সংগৃহীতগত বছরটা ফেদেরারের ক্যারিয়ারে স্মরণীয় হয়ে থাকবে, ‘২০১৬ সালে খুব কঠিন সময় পার করে ফেরার পর গত বছরটা আমার কাছে অবিস্মরণীয়। এই অ্যাওয়ার্ড আরও বেশি স্মরণীয় হয়ে থাকবে। যখন অামি ২০০৫ সালে প্রথম লরিয়াস অ্যাওয়ার্ড জিতেছিলাম, যদি আপনি আমাকে তখন বলতেন আমি সংখ্যাটা ৬-এ নিয়ে যাব, আমি তা বিশ্বাস করতাম না। এটা অবিশ্বাস্য একটা যাত্রা।’

২০০০ সালে চালু হওয়া এই পুরস্কার এখন পর্যন্ত কোনো ফুটবলার জেতেননি। এ নিয়ে ৯ বারই জিতেছেন টেনিস খেলোয়াড়রা। দুই ফুটবল সম্রাট লিওনেল মেসি ও ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো এখনো লরিয়াস বর্ষসেরা ক্রীড়াবিদ হতে পারেননি!

বর্ষসেরা নারী ক্রীড়াবিদ হয়েছেন গত বছর অস্ট্রেলিয়ান ওপেন দিয়ে ২৩তম গ্র্যান্ড স্লাম ট্রফির মালিক সেরেনা উইলিয়ামস। তবে অ্যাওয়ার্ড প্রোগ্রামে অনুপস্থিত ছিলেন মার্কিন আইকন।

ছবি: সংগৃহীতঅন্যান্য অ্যাওয়ার্ডের মধ্যে অবসরে যাওয়া ইতালিয়ান ফুটবল গ্রেট ফ্রান্সেসকো টট্টিকে ‘এক্সেপশনাল অ্যাচিভমেন্ট অ্যাওয়ার্ড’ এ ভূষিত করা হয়েছে। সম্মান দেখানো হয়েছেরোমায় তার ২২ বছরের বর্ণাঢ্য ক্যারিয়ারকে। সাবেক তারকা ফুটবলার রায়ান গিগসও উপস্থিত ছিলেন। রেড কার্পেটে বল দিয়ে কিছু কৌশল প্রদর্শন করে সবার দৃষ্টি আকর্ষণ করেন সাবেক ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড মিডফিল্ডার। সস্ত্রীক উপস্থিত ছিলেন কলম্বিয়ান তারকা রাদাফেল ফ্যালকাও।

আজীবন সম্মাননায় সম্মানিত করা হয়েছে সাবেক আমেরিকান অ্যাথলেট এড মোসেসকে। সুইস ওয়ার্ল্ড চ্যাম্পিয়ন হুইলচেয়ার রেসার মার্সেল হাগ জিতেছেন ডিসঅ্যাবিলিটি অ্যাওয়ার্ড।

বিশ্বজুড়ে সমর্থকদের ভোটে সেরা স্পোর্টিং মোমেন্ট ২০১৬ সালের নভেম্বরে মর্মান্তিক বিমান দুর্ঘটনার পর ব্রাজিলিয়ান ফুটবল ক্লাব শাপেকোয়েন্সের আবেগগণ পুনরুজ্জীবন ও প্রতিযোগিতায় প্রত্যাবর্তন।

বাংলাদেশ সময়: ১৬৫০ ঘণ্টা, ২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮
এমআরএম

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa