[x]
[x]
ঢাকা, বুধবার, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫, ২৩ মে ২০১৮

bangla news

খালেদার রায় নিয়ে জনগণ উৎকণ্ঠিত

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৮-০১-৩০ ২:০৩:৩৭ পিএম
জিয়া সাংস্কৃতিক জোটের সভায় অতিথিরা

জিয়া সাংস্কৃতিক জোটের সভায় অতিথিরা

ঢাকা: বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদার বিচারের রায় নিয়ে জনগণ উৎকণ্ঠিত বলে জানিয়ে দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেছেন, বিচারপতিদের এখন আর বিচার করার কোনো সুযোগ নেই, তারা শুধু টিভির সংবাদ পাঠকদের মতো রায়ের খবর পাঠ করেন।

মঙ্গলবার (৩০ জানুয়ারি) জাতীয় প্রেসক্লাবের ভিআইপি লাউঞ্জে রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের ৮২তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে জিয়া সাংস্কৃতিক জোট আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ মন্তব্য করেন তিনি।

গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেন, ৮ ফেব্রুয়ারি নিয়ে জনগণ উৎকণ্ঠিত। কারণ, ইতোমধ্যে সংসদে প্রধানমন্ত্রী রায় ঘোষণা করে দিয়েছেন। বিএনপি না হয় ক্ষমতায় নাইবা গেল। কিন্তু এ অপরাজনীতির জন্য জনগণ আপনাদের রাস্তায় নামিয়ে ছাড়বে। হয়তো আমাদের আবার ঊনসত্তরের গণঅভ্যুত্থানের পথে হাঁটতে হবে। বিচার বিভাগকে বিরোধী দলীয় দলকে নির্যাতনের জন্য ব্যবহার করা হচ্ছে। কিন্তু এই স্বেচ্ছাচারিতা আর বরদাস্ত করা হবে না।

লুটপাটের রাজনীতিতে অভ্যস্ত আওয়ামী লীগ তাদের তাদের দোষ স্বীকার করতে ভয় পায় উল্লেখ করে তিনি আরও বলেন, আওয়ামী লীগের বিরুদ্ধে কোনো কথা বলা যায় না। তারা লুটপাট করেই যাবে আর জনগণকে তা মেনে নিতেই হবে। তারা রাজপথ আটকে রাখবে। যদি রাজপথ উন্মুক্ত থাকতো আর গণতন্ত্রের চর্চা থাকতো তাহলে শহীদ জিয়ার জয়-জয়কারও থাকতো। তাই তারা ভয় পায়।

জিয়া সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি মো. হাসানুল ইসলাম রাজার সভাপতিত্বে আরও উপস্থিত ছিলেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শামসুজ্জামান দুদু, অ্যাডভোকেট গৌতম চক্রবর্তী, অ্যাডভোকেট রফিক সিকদার, সংগঠনটির সাধারণ সম্পাদক নূর আহমেদ জিয়াসহ আরও অন্যান্য নেতারা।

এ সময় বক্তারা ৮ ফেব্রুয়ারির জন্য সবাইকে প্রস্তুত থাকতে বলে অগণতান্ত্রিক সরকারকে ক্ষমতা থেকে সরিয়ে দিতে জনগণকে সোচ্চার হওয়ার আহ্বান জানান।

বাংলাদেশ সময়: ১৩৫৪ ঘণ্টা, জানুয়ারি ৩০, ২০১৮
এমএএম/এমজেএফ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa