ঢাকা, সোমবার, ৭ কার্তিক ১৪২৪, ২৩ অক্টোবর ২০১৭

bangla news

বগুড়ার তিন উপজেলায় ৮ হাজার পরিবার পানিবন্দি

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৭-০৮-১৩ ১:৩৩:৩০ পিএম
যমুনার পানি বেড়ে ৮ হাজার পরিবার পানিবন্দি-ছবি-বাংলানিউজ

যমুনার পানি বেড়ে ৮ হাজার পরিবার পানিবন্দি-ছবি-বাংলানিউজ

বগুড়া: গত কয়েকদিনের ভারী বর্ষণে যমুনা নদীর পানি নতুন করে বেড়ে বগুড়ার তিন উপজেলায় প্রায় ৮ হাজার পরিবার পানিবন্দি হয়ে পড়েছে। তলিয়ে গেছে অনেক ফসলি জমি। পানি প্রবেশ করেছে বেশ কিছু শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে।

সবমিলে পানি বৃদ্ধি অব্যাহত থাকায় যমুনাবেষ্টিত এলাকার মানুষ দুর্ভোগে পড়েছেন।  

রোববার (১৩ আগস্ট) বেলা ১২টার দিকে বগুড়া পানি উন্নয়ন বোর্ডের উপ-সহকারী প্রকৌশলী হারুনুর রশিদ বাংলানিউজকে জানান, গত ৪৮ ঘণ্টায় সারিয়াকান্দি, ধুনট ও সোনাতলা পয়েন্টে যমুনা নদীর পানি বেড়ে বিপদসীমার ৩৭ সেন্টিমিটার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, সারিয়াকান্দি উপজেলার কুতুবপুর, কামালপুর, চন্দনবাইশা, কর্ণিবাড়ি, চালুয়াবাড়ি, বোহাইল, কাজলা ইউনিয়নের সম্পূর্ণ এবং সারিয়াকান্দি সদর ও হাটশেরপুর ইউনিয়নের আংশিক এলাকা নতুন করে প্লাবিত হয়েছে।

এতে সারিয়াকান্দি উপজেলার এসব ইউনিয়নের প্রায় ৫ হাজার, ধুনটের ভাণ্ডারবাড়ি ইউনিয়নের প্রায় ২ হাজার এবং সোনাতলার তেকানি চুকাইনগর, পাকুল্যা ও মধুপুর ইউনিয়নের প্রায় ১ হাজার পরিবার পানিবন্দি হয়ে পড়েছে।  

সারিয়াকান্দি উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা (পিআইও) সরোয়ার আলম, ধুনটের পিআইও রিয়াজুল ইসলাম ও সোনাতলার পিআইও জিয়াউর রহমান বাংলানিউজকে এসব তথ্য নিশ্চিত করেন।

জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা হোসেন আলী বাংলানিউজকে জানান, এ পর্যন্ত কতগুলো শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পানি প্রবেশ করেছে, কতগুলো শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পাঠদান কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে তা জানতে সন্ধ্যা নাগাদ অপেক্ষা করতে হবে।

তবে নতুন করে পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় বন্যাকবলিত এসব এলাকার শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের কার্যক্রম নিয়ে শঙ্কা প্রকাশ করেছেন এই কর্মকর্তা।
 
বাংলাদেশ সময়: ১৩৩৩ ঘণ্টা, আগস্ট ১৩, ২০১৭
এমবিএইচ/আরআর
 

 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

FROM AROUND THE WEB
Loading...
Alexa