ঢাকা, শুক্রবার, ২৮ আশ্বিন ১৪২৪, ১৩ অক্টোবর ২০১৭

bangla news

মুক্তামনির জন্য মায়া হয়, বললেন আবুল বাজনদার

আবাদুজ্জামান শিমুল, সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৭-০৮-১২ ১১:৩৪:১৬ এএম
বাজনদার দাঁড়িয়ে মুক্তামনির জন্য, ছবি: বাংলানিউজ

বাজনদার দাঁড়িয়ে মুক্তামনির জন্য, ছবি: বাংলানিউজ

ঢাকা: দ্বিতীয় দফায় মুক্তামনির অস্ত্রোপচার চলছিল। শনিবার (১২ আগস্ট) সকাল সোয়া ৮টায় অস্ত্রোপচারের কক্ষে নিয়ে যাওয়া হয় শিশুটিকে। সেসময় থেকেই অপেক্ষা আবুল বাজনদারের।

আরেক বিরল রোগ নিয়ে অস্ত্রোপচারের মুখোমুখি হয়েছিলেন বাজনদার। তাই শিশু মুক্তার কষ্টটা তিনি হয়ত ঠিকই টের পান। অপারেশন থিয়েটারের গেটে দাঁড়িয়ে বললেন, মুক্তামনির জন্য মায়া হয়।

রক্তনালীর টিউমারে আক্রান্ত সাতক্ষীরার মুক্তার পূর্ণ সুস্থতা কামনা করেন তিনি। শিশুর বাবা-মার সঙ্গেই অস্ত্রোপচারের সময়টুকু কাটিয়েছেন বাজনদার।

বাজনদার বলেন, মুক্তাও আমার মতো বড় রোগে আক্রান্ত। সে খুবই ছোট তার জন্য মায়া হয়। থাকতে পারিনি, তাই সকালে উঠেই তাকে দেখতে আসলাম।

ট্রি-ম্যান সিনড্রোমে ভোগা বাজনদার গত এক বছর আট মাস থেকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের ৫১৫ নম্বর কেবিনে চিকিৎসাধীন।

এদিকে দ্বিতীয় দফায় মুক্তার অপারেশন শেষ হয়েছে। তার ডান হাতে সমস্যার শুরু। প্রথমে হাতে টিউমারের মতো হয়; ছয় বছর বয়স পর্যন্ত টিউমারটি তেমন বড় হয়নি। কিন্তু পরে তার হাতটি ফুলে অনেকটা কোলবালিশের মতো হয়ে যায়! সে বিছানাবন্দি হয়ে পড়ে। এরপর সংবাদমাধ্যমে তার কথা উঠে এলে গত ১১ জুলাই ভর্তি করা হয় ঢামেকের বার্ন ইউনিটে। চিকিৎসার দায়িত্ব গ্রহণ করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

দ্বিতীয় দফায় মুক্তামনির অস্ত্রোপচার সম্পন্ন

বাংলাদেশ সময়: ১১২৬ ঘণ্টা, আগস্ট ১২, ২০১৭
এজেডএস/আইএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

স্বাস্থ্য বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত

FROM AROUND THE WEB
Loading...
Alexa