[x]
[x]
ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৪, ১২ ডিসেম্বর ২০১৭

bangla news

এক ছাদের নিচে কোরিয়ার সব ব্রান্ড

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৭-১০-১৩ ২:২৬:২৯ পিএম
রাজধানীতে শুরু হয়েছে ‘শোকেস কোরিয়া ২০১৭’- ছবি- কাশেম হারুন

রাজধানীতে শুরু হয়েছে ‘শোকেস কোরিয়া ২০১৭’- ছবি- কাশেম হারুন

ঢাকা: রাজধানীতে ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সিটি, বসুন্ধরা’র (আইসিসিবি) নবরাত্রি হলে শুরু হয়েছে ‘শোকেস কোরিয়া ২০১৭’। শুক্রবার (১৩ অক্টোবর) সকালে শুরু হওয়া দু’দিনব্যাপী এ আয়োজন চলবে শনিবার (১৪ অক্টোবর) সন্ধ্যা পর্যন্ত।

কোরিয়ার বিশ্ববিখ্যাত ইলেকট্রনিক ও কনজ্যুমার পণ্যের প্রদর্শনী এবং ভোক্তাদের সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দিতেই কোরিয়া-বাংলাদেশ চেম্বার অ্যান্ড কমার্স ইন্ডাস্ট্রি (কেবিসিসিআই) এ ‘শোকেস’ আয়োজন করেছে। 
 
দুপুর পযর্ন্ত ‘শোকেস’ ভেন্যু ঘুরে দেখা যায়, বাংলাদেশে কোরিয়ার বিশ্বখ্যাত ব্রান্ড প্রোমোটার কোম্পানিগুলো স্টল দিয়েছে।
 
স্যামসাং ইন্ডিয়া ইলেক্ট্রনিকস লি. (বাংলাদেশ ব্রাঞ্চ), এলজি ইলেক্ট্রনিকস বাংলাদেশ লি., এসিই মেশিনারি কোম্পানি লি., বি অ্যান্ড এফ কোম্পানি লি., ইন্ট্রাকো এলপিজি লি., কেআইএ বাংলাদেশ লি., এমইপি ইঞ্জিনিয়ারিং পয়েন্ট, টিরোন টায়ার বাংলাদেশ লি. ও ইয়াংওয়ান করপোরেশন লি.সহ প্রায় ৪৫টি কোরিয়ান কোম্পানি তাদের প্রস্তুতকৃত ইলেক্ট্রনিকস ও কনজ্যুমার পণ্য’র স্টল দিয়েছে।

এর বাইরে বাংলাদেশের মেঘনা গ্রুপ, জিএমজি গ্রুপ, চা গরম, কফি গ্লোরি ও কোরিয়া-বাংলাদেশ চেম্বার অ্যান্ড কমার্স ইন্ডাস্ট্রি (কেবিসিসআই) আলাদা স্টল দিয়েছে। ছুটির দিন হওয়ায় স্টলগুলোতে ভিড়ও জমেছে বেশ।
 
স্টলে ক্রেতা ও দর্শনার্থী ভেড়াতে নামিদামি ব্রান্ডগুলো দিয়েছে আকর্ষণীয় ছাড়। ‘শোকেস’ উপলক্ষে এলজি’ টিভি, ফ্রিজ, এয়ারকন্ডিশন, ওয়াশিং মেশিন, মোবাইল- সব পণ্যে রয়েছে ৫ শতাংশ ছাড়।

‘শোকেস কোরিয়া ২০১৭’ প্রদর্শন করছেন বাণিজ্যমন্ত্রী
স্যামসাং ইলেক্ট্রনিকসের বিভিন্ন পণ্যে রয়েছে আকর্ষণীয় ছাড়। বিশ্ববিখ্যাত এ কোরিয়ান কোম্পানির টিভি-তে ১৫ শতাংশ, এয়ার কন্ডিশনে ৮ শতাংশ, মাইক্রোওভেনে ১৫০০ টাকা পযর্ন্ত ডিসকাউন্টসহ রয়েছে নানা রকম ছাড়।
 
এদিকে শুক্রবার বেলা ১২টায় বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ ও ঢাকায় নিযুক্ত কোরিয়ান রাষ্ট্রদূত আন সিয়ং দু ‘শোকেস কোরিয়া-২০১৭’র আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন।
 
এ সময় বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, এক সময় বাংলাদেশকে তলাবিহীন ঝুঁড়ি বলা হতো। বাংলাদেশ এখন উদীয়মান অর্থনীতির দেশ। আমাদের অর্থনীতি কোরিয়ার মতো এতো বড় না হলেও সম্ভবনাময় অর্থনীতির দেশ হিসেবে সবার দৃষ্টি কাড়তে সক্ষম হয়েছে।
 
তিনি বলেন, আপনারা যে পণ্যগুলো তৈরি করছেন, সেগুলো ব্যবহার করার মতো সামর্থ্য বাংলাদেশের মানুষ অর্জন করেছে। গ্রামের ঘরে ঘরে এখন টিভি চলে। গ্রামের মানুষ এখন ফ্রিজ ব্যবহার করে।
 
কোরিয়ান রাষ্ট্রদূত আন সিয়ং দু বলেন, বাংলাদেশে ব্যবসার অভিজ্ঞতা আমাদের ভালো। আমরাও জানি, এখানকার মানুষ এখন বিশ্বের সঙ্গে তাল মিলিয়ে চলার মতো সক্ষমতা অর্জন করেছে। সে কারণে, বিশ্ববিখ্যাত ব্রান্ডের পণ্য উৎপাদন ও ব্যবহার বাংলাদেশে দিন দিন বাড়ছে।

মিথ্যাচার করছেন মিয়ানমারের সেনাপ্রধান

বাংলাদেশ সময়: ১৪২৩ ঘণ্টা, অক্টোবর ১৩, ২০১৭
এজেড/জেডএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

FROM AROUND THE WEB
Alexa