[x]
[x]
ঢাকা, শুক্রবার, ৬ মাঘ ১৪২৪, ১৯ জানুয়ারি ২০১৮

bangla news

কোটা তুলে দেওয়ায় গার্মেন্টস শিল্প আরো বিকশিত হয়েছে

বাংলানিউজ টিম | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৭-০১-১৮ ১২:৪৭:২৭ পিএম
উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অতিথিরা/ ছবি- দিপু মালাকার

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অতিথিরা/ ছবি- দিপু মালাকার

আইসিসিবি থেকে: গার্মেন্টস শিল্পে কোটা তুলে দেওয়ায় বাংলাদেশের গার্মেন্টস শিল্প আরো বেশি বিকশিত হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র আনিসুল হক। 

বুধবার (১৮ জানুয়ারি) দুপুরে রাজধানীর ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সিটি, বসুন্ধরায় (আইসিসিবি) গ্যাপেক্সপো-২০১৭; ৮ম আন্তর্জাতিক শিল্প মেলার উদ্বোধন অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

মেলার আয়োজন করেছে বাংলাদেশ গার্মেন্টস এক্সেসরিজ অ্যান্ড প্যাকেজিং ম্যানুফ্যাকচারারার্স অ্যান্ড এক্সপোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশন (বিজিএপিএমইএ)।  

এছাড়া মেলায় কো-অর্গানাইজার হিসেবে কাজ করছে এএসকে ট্রেড অ্যান্ড এক্সজিবিশন প্রা. লি. ইন্ডিয়া ও জাকারিয়া ট্রেড অ্যান্ড ফেয়ার ইন্টারন্যাশনাল।  

এবার মেলায় দেশি-বিদেশি শিল্প প্রতিষ্ঠান নিয়ে মোট ৮টি হলে ৬০০টি স্টলসহ ৮০০টি বুথ রয়েছে। শিল্প মেলায় ভারত, চীন, পাকিস্তান, তাইওয়ান, জার্মানি, থাইল্যান্ড, জাপান, শ্রীলঙ্কা, তুরস্ক, যুক্তরাষ্ট্র, সিঙ্গাপুর, হংকংসহ মোট ৩০টি দেশ অংশগ্রহণ করছে। 

স্টলগুলোতে মেশিনারিজসহ গার্মেন্টস এক্সেসরিজ ও প্যাকেজিং পণ্যের মেশিনারিজ, কাঁচামাল এবং গার্মেন্টস এক্সেসরিজ এবং প্যাকেজিং শিল্প প্রতিষ্ঠানের উৎপাদিত পণ্যসহ ইয়ার্ন ও ফেব্রিক্স প্রদর্শিত হচ্ছে। যা চলবে আগামী ২১ জানুয়ারি পর্যন্ত।    

উদ্বোধন অনুষ্ঠানে বিজিএমইএ’র সাবেক সভাপতি আনিসুল হক বলেন, আজ বাংলাদেশ শুধু এক্সেসরিজের মাধ্যমে নিজের চাহিদাই পূরণ করছে না, বিদেশেও রপ্তানি করছে। কোটা উঠে গেলে আগে বলা হয়েছে এ গার্মেন্টস শিল্প থাকবে না, ধ্বংস হয়ে যাবে। এমনকি তখনকার সরকারও এ কথায় কান দিয়েছিলো। কিন্তু একমাত্র আমরাই বলেছিলাম (বিজিএমইএ) কোটা উঠে গেলে আমাদের শিল্প আরো বেশি সম্প্রসারিত হবে। আজ ঠিক তাই হয়েছে। এবং বাংলাদেশের গার্মেন্টস শিল্প আজ বিশ্ব বাজারে স্থান দখল করে নিয়েছে।

তিনি আরো বলেন, আওয়ামী লীগ সরকার বাণিজ্যবান্ধব। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদের কাছে যখনই যে সমস্যার কথা বলা হয়েছে তখনই মহূর্তের মধ্যেই সে সমস্যার সমাধান করেছেন। আজ বিশ্বে বাংলাদেশ একটি উদাহরণ। আর এ উদাহরণ হচ্ছে, গার্মেন্টস শিল্পে নারী বিপ্লব, অর্থনৈতিক খাতের উন্নয়নের উদাহরণ। 

আনিসুল হক আরো বলেন, রানা প্লাজা আমাদেরকে সচেতন করেছে। কেননা ওই ঘটনার পর থেকে আমাদের শিল্প সেক্টরে কর্মীদের জীবনের নিরাপত্তা ব্যবস্থা বেড়েছে। এছাড়া দুর্বিষহ ঘটনার স্মৃতি কখনো ভোলার নয়। যে কষ্টগুলোকে ধরে আমরা সামনের দিকে ধীরে ধীরে এগিয়ে যাচ্ছি।

অনুষ্ঠানে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন বিজিএমইএ’র সভাপতি সিদ্দিকুর রহমান। 

বিজিএপিএমইএ এর সভাপতি মো. আব্দুল কাদের খানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন বাণিজ্য মন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ এমপি, বাংলাদেশ ব্যাংকের ডেপুটি গর্ভনর এস কে সুর চৌধুরী, এফবিসিসিআই এর প্রথম সহ-সভাপতি সফিউল আসলাম মহিউদ্দিন, বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ডেভেলপমেন্ট স্টাডিজের (বিআইডিএস) সিনিয়র রিসার্চ ফেলো ড. নাজনিন আহমেদ, এএসকে ট্রেড অ্যান্ড এক্সজিবিশন প্রা. লি. ইন্ডিয়ার পরিচালক নন্দ গোপাল কে’সহ অনেকে।

বাংলাদেশ সময়: ১২৪৬ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৮,২০১৭
এসজে/এসকে/জেডএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa