২ আশ্বিন ১৪২১, বুধবার সেপ্টেম্বর ১৭, ২০১৪ ৭:৩২ এএম BDST banglanew24
14 Oct 2013   03:20:50 PM   Monday BdST

হেলিকপ্টারে সস্ত্রীক মাগুরায় সাকিব


রূপক আইচ ও সোহানুজ্জামান নয়ন
বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
হেলিকপ্টারে সস্ত্রীক মাগুরায় সাকিব
ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

মাগুরা: বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার ক্রিকেটার সাকিব আল হাসান নিজ বাড়িতে ঈদ উদযাপনের জন্য হেলিকপ্টারে করে সস্ত্রীক মাগুরায় এসেছেন।  

সোমবার সকাল ১১টা ১০ মিনিটে স্ত্রী উম্মে আহমেদ শিশিরকে সঙ্গে নিয়ে মাগুরা জেলা স্টেডিয়ামে অবতরণ করেন তিনি।

এসময় স্টেডিয়ামে কয়েকশ দর্শক ও ছোটবেলার মাগুরা ক্রিকেট কোচিং একাডেমির ক্রিকেটাররা হাত নেড়ে অভিবাদন জানায় সাকিব দম্পতিকে।

রোববার চট্টগ্রাম টেস্ট ড্র শেষেই বাংলাদেশের ক্রিকেটাররা ঢাকায় ফিরেছেন। মিরপুরে দ্বিতীয় টেস্ট শুরুর আগেshakin-en ঈদের ছুটি পেলেন খেলোয়াড়রা। অল্প সময় হাতে পেয়েই নিজ বাড়িতে উড়ে এলেন অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান। সত্যিই উড়ে এলেন তিনি। লাল রঙের হেলিকপ্টার এস২এসওয়াই’এ চড়ে।

ছেলে ও ছেলের বউকে বরণ করে নিতে সেখানে ছিলেন, সাকিবের মা শিরিন আক্তার ও বাবা মাশরুর রেজা। বিশ্বসেরা এ অলরাউন্ডারের পরিবারের অন্য সদস্য ও বন্ধুরাও উপস্থিত ছিলেন।

কোচিং একাডেমিতে যার কাছে হাতে ক্রিকেটের খড়ি সেই গুরু সাদ্দাম হোসেন গর্কিও ছিলেন শিষ্যকে স্বাগত জানাতে। ছিলেন জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক আলহাজ মকবুল হোসেন।

মাগুরা শহরের মাঠে অবতরণ করে হেলিকপ্টার। এসময় হাত উঁচু করে দর্শকদের অভিবাদনের জবাব দেন সাকিব। পরে নিজের ক্রিকেট কোচিং একাডেমির ছাত্রছাত্রীদের সঙ্গে কথা বলেন। একাডেমির ছাত্রছাত্রীদের জন্য বিভিন্ন উপহার সামগ্রী দেওয়ারও ঘোষণা দেন।

বাল্যকালের একাডেমির প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়ে সাকিব বলেন, এ একাডেমি থেকেই ক্রিকেটে আমার পথ চলা শুরু। আজ যে পর্যন্ত এসেছি তা এ একাডেমির জন্যই। আমি চাই এখান থেকে ভালো ভালো খেলোয়াড় বের হয়ে জাতীয় দলে খেলবে। তবে খেলাধুলার পাশাপাশি পড়ালেখায় মনোযোগী হতে হবে।

মাগুরা জেলার অনূর্ধ্ব-১৮ দলের অধিনায়ক রানা বিশ্বাস shakib-enজানান, সাকিব ভাইকে পাশে পেয়ে আমরা নতুন করে উজ্জীবিত। তার কাছ থেকে ব্যাটিং পরামর্শ নিয়ে আমি এখন ব্যাটিংয়ে অনেক উন্নতি করেছি। তিনি আমাকে বলেছিলেন বোলার যখন বোলিং করতে আসে তখন তার রানআপ, গ্রিপ, মুভমেন্ট ও ফুটওয়ার্কের দিকে খুব ভালোভাবে দৃষ্টি রাখতে হবে। সব সময় দলের অবস্থা চিন্তা করে ব্যাটিংয়ে মনোনিবেশ করতে হবে।

সাকিবের প্রথম গুরু সাদ্দাম হোসেন গর্কি জানান, ১৯৯৮ সালে মাত্র ৩০ জন খেলোয়াড় নিয়ে এ একাডেমির যাত্রা শুরু হয়। তখন থেকেই সাকিব আমার নিয়মিত খেলোয়াড় ছিল। এখন প্রায় সাড়ে তিনশ সদস্য। বর্তমানে জাতীয় দলে সাকিব ছাড়াও মহিলা ক্রিকেট দলে ফাহিমা খাতুন আমাদের একাডেমির খেলোয়াড়। অনূর্ধ্ব-১৯ এর আসলাম হোসেন ছাড়াও বেশ কিছু খেলোয়াড় বয়সভিত্তিক ও বিভাগীয় পর্যায়ে সুনামের সঙ্গে খেলে আসছে। সাকিব নিয়মিত আমাদের একাডেমিকে বিভিন্নভাবে সহায়তা ও পরামর্শ দিয়ে থাকে।

শিশিরকে নিয়ে প্রথমবারের মতো মাগুরায় সাকিব। এবারের ঈদ কেমন কাটবে জানতে চাইলে উৎফুল্ল এ অলরাউন্ডার জানান, শিশিরকে নিয়ে মাগুরায় প্রথম ঈদ করব। আমার ও আমার পরিবারের জন্য এটা আনন্দের। একই সঙ্গে ঈদ-পূজার ছুটি, বন্ধুদের সঙ্গে সময় কাটাতে পারব। ঈদের পরদিনই ঢাকায় ফিরতে হবে। অল্প সময়ে একাডেমির সবার সঙ্গে সময় দিতে পারবো না। ঈদে শিশিরকে নিয়ে মাগুরায় অনেক জায়গায় ঘুরে বেড়াব।

বাংলাদেশ সময়: ১৫৩৭ ঘণ্টা, অক্টোবর ১৪, ২০১৩/আপডেট ১৪০৫
এফএইচএম/এসএইচ/আরআইএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Bookmark and Share
comments powered by Disqus
ad_service
banglanews24 All Apps
REVE Systems
Kaspersky Lab Antivirus Software Bangladesh

খেলা

8877
বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম | এডিটর-ইন-চিফ: আলমগীর হোসেন

ফোন: +৮৮ ০২ ৮৪০২১৮১, ৮৪০২১৮২ আই.পি. ফোন: +৮৮০-৯৬১২১২০০০০ নিউজ রুম মোবাইল: +৮৮-০১৭২৯০৭৬৯৯৬, ০১৭২৯০৭৬৯৯৯ ফ্যাক্স: +৮৮ ০২ ৮৪০ ২৩৪৬
ইমেইল: news.bn24@gmail.com    বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম    এডিটর-ইন-চিফ: আলমগীর হোসেন    ইমেইল: editor.banglanews@gmail.com

কপিরাইট © 2014 সকল স্বত্ব ® সংরক্ষিত    একটি ইস্ট ওয়েস্ট মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেড প্রতিষ্ঠান