প্রতিযোগিতা ও সহযোগিতা একসঙ্গে হতে হবে
[x]
[x]
ঢাকা, শুক্রবার, ২ ভাদ্র ১৪২৫, ১৭ আগস্ট ২০১৮
bangla news

প্রতিযোগিতা ও সহযোগিতা একসঙ্গে হতে হবে

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৮-০১-১২ ৯:২৭:২৪ পিএম
বক্তব্য দেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ইনস্টিটিউট অব এনার্জি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ড. নাসিফ শামস

বক্তব্য দেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ইনস্টিটিউট অব এনার্জি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ড. নাসিফ শামস

চট্টগ্রাম: প্রতিযোগিতা ও সহযোগিতা এক সঙ্গে হতে হবে উল্লেখ করে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইনস্টিটিউট অব এনার্জি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ড. নাসিফ শামস বলেছেন, শুধু বিজয়ী হবার লক্ষ্যে নয় বিতর্ক করতে হবে প্রকৃত মানুষ হতে।

দৃষ্টি চট্টগ্রামের আয়োজনে শুক্রবার (১২ জানুয়ারি) রয়েল সিমেন্ট-দৃষ্টি জাতীয় কলেজ বিতর্ক প্রতিযোগিতার উদ্বোধনকালে তিনি এসব কথা বলেন।  

অনুষ্ঠানে অতিথি ছিলেন তরুণ উদ্যোক্তা হ্যামার স্ট্রেন্থ ফিটনেস সেন্টারের কর্ণধার রুম্মন আহমেদ, নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয় ডিবেটিং ক্লাবের সাবেক সভাপতি নাসির উদ্দীন।

দৃষ্টির সহসভাপতি সাইফ চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন দৃষ্টির সহসভাপতি শহীদুল ইসলাম হিরো, প্রতিযোগিতার প্রধান বিচারক কাজী আরফাত, সমন্বয়কারী মুন্না মজুমদার, ডি টিন সামিটের সম্বয়কারী সৌরভ নাথ, দৃষ্টির সহ-সম্পাদক রিদোয়ান আলম আদনান ও অনির্বাণ বড়ুয়া।

ড. নাসিফ শামস বলেন, মানুষের শ্রেষ্ঠত্ব নিহিত তার মনুষ্যত্বের মধ্যে কারণ তার মধ্যে একই সঙ্গে বিশ্বাস, সামঞ্জস্যতা, ন্যায়পরায়ণতা ও বিবেচনাবোধ থাকে।

রুম্মন আহমেদ বলেন, বিতর্ক অনুশীলন সত্যকে তুলে ধরতে শেখায়, সহনশীলতা বাড়ায় এবং একই সঙ্গে মনস্তাত্ত্বিক গুণগত পরিবর্তন আনতে পারে।

সাইফ চৌধুরী বলেন, ২৫ বছর পেরিয়ে সৃষ্টিশীলতার মধ্যে দিয়ে দক্ষতা ও যোগ্যতার প্রমাণ দিয়ে চট্টগ্রামে বিতর্ক প্রসারে পথিকৃৎ হয়ে আছে দৃষ্টি চট্টগ্রাম। যদিও কিছু বিপথগামী তরুণের কর্মকাণ্ড দেশের উন্নয়নকে সাময়িক ভাবে পিছিয়ে দিচ্ছে তারপরেও এদেশের অধিকাংশ তরুণেরা এগিয়ে যাচ্ছে আলোর পথে, যুক্তির পথে।

এ প্রতিযোগিতায় রয়েছে ১৫তম জাতীয় কলেজ বিতর্ক প্রতিযোগিতায় সারা দেশের ১৪টি কলেজের ১৮টি দল অংশ নিচ্ছে। এর মধ্যে রয়েছে চট্টগ্রাম কলেজ, ঢাকা কলেজ, সরকা্রি হাজী মুহাম্মদ মহসিন কলেজ, সরকারি কমার্স কলেজ, বাংলাদেশ নৌবাহিনী কলেজ, চট্টগ্রাম বিজ্ঞান কলেজ, চিটাগাং মডেল কলেজ, সিডিএ পাবলিক কলেজ, হালিশহর ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুল অ্যান্ড কলেজ, চট্টগ্রাম সরকারি মহিলা কলেজ, সরকারি সিটি কলেজ, কুয়াইশ বুড়িশ্চর সিটি করপোরেশন কলেজ, চাঁদপুর সরকারি কলেজ ও চিটাগাং সানশাইন কলেজ।

প্রতিযোগিতার চূড়ান্ত পর্বে শনিবার (১৩ জানুয়ারি) সকাল ১০টা থেকে থিয়েটার ইনস্টিটিউট চট্টগ্রাম (টিআইসি) মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হবে। একই সঙ্গে ডি টিন সামিটের সমাপন ও পুরস্কার বিতরণ দুপুর ১২টায় অনুষ্ঠিত হবে। এতে প্রধান অতিথি চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. ইফতেখার উদ্দীন চৌধুরী। অনুষ্ঠানে অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ টেলিভিশন চট্টগ্রাম কেন্দ্রের মহাব্যবস্থাপক মনোজ সেনগুপ্ত ও প্রাক্তন বিতার্কিক রাজনীতিবিদ মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল।

‘ডি টিন সামিট’ শুরু

বাংলাদেশ সময়: ২১২৫ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১২, ২০১৮

এআর/টিসি

 

 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa