banglanews24.com lifestyle logo
 
 

ফ্যাশনেও নাকফুল

শারমীনা ইসলাম

একটা সময় ছিল যখন নারীদের বিবাহিত না অবিবাহিত এটা বোঝা যেত নাকের নাকফুল দেখে। মাঝে নাকফুল পরার চল প্রায় উঠেই গিয়েছিল। ফ্যাশনেবল তরুণীরা নাকফুল পরাকে স্মার্টনেসের পরিপন্থী মনে করত। তবে সময় বদলেছে। এখন তরুণীরা ছোট বড় নাকফুল পরছেন। অনেকে তো প্রতিটি পোশাকের রংয়ের সঙ্গে মিলিয়ে নাকফুল পরেন।

আগে শুধু সোনা বা রুপার নাকফুল পরা হলেও বর্তমানে ফ্যাশন অনুষঙ্গ হিসেবে মেয়েদের কাছে হীরার নাকফুল এ জায়গার অনেকটা দখল করে নিয়েছে।

নাকফুলের আকার এবং মেটালের ওপর নির্ভর করে এর দাম নির্ধারণ করা হয়। যেমন শুধু সোনার নাকফুল ১৫০০ টাকা থেকে শুরু হয়। চাইলে রেডিমেট কিনে নিতে পারেন অথবা অর্ডার দিয়ে পছন্দের ডিজাইনের নাকফুল বানিয়েও নিতে পারেন।

ডায়মন্ড ওর্য়াল্ডের কর্মী স্নিন্ধা জানান, এখানে হীরার নাকফুল ৪০০০ টাকা থেকে ২ লাখ টাকা পর্যন্ত পাওয়া যায়। 

এবার আসি কে কেমন নাকফুল পরবেন। যাদের নাক ছোট আর খুব বেশি খাড়া নয়, তারা ছোট্ট এক পাথরের নাকফুল পরলে ভালো দেখাবে।

আর যাদের নাক বড়, চোখা তাদের নাকে বড় নাকফুল বেশ মানিয়ে যায়। তবে চাইলে ছোট নাকফুলও পরতে পারেন।

সব সময় পরতে চাইলে ছোট এক পাথরের নাকফুল ব্যবহার করতে পারেন। আর কোনো উৎসবে পোশাকের সঙ্গে মিলিয়ে বড় নাকফুল পরতে পারেন।

শাড়ি, কামিজ, ফতুয়া এমনকি টি-শার্টের সঙ্গেও নাকফুল পরতে পারেন। নাকফুল নারী সৌন্দর্য অনেক বাড়িয়ে দেয়। অনেকেই ব্যাথার ভয়ে নাক ফোঁড়াতে চান না, তারাও ইচ্ছা করলে টিপ নাকফুল পরতে পারেন। সেক্ষেত্রে দামী নাকফুল পরলে সচেতন থাকতে হবে যেন হারিয়ে না যায়।

আর যদি সাহস করতে পারেন, তবে দেরি না করে চলে যান কাছের কোনো ভালো মানের পার্লারে। ব্যাথা ছাড়াই নাক ফোঁড়াতে পারবেন। পার্লার ভেদে নাক ফোঁড়াতে ৩০০ থেকে ৫০০ টাকা নিয়ে থাকে। নাক ফোঁড়ানোর পর প্রথমে সোনার নাকফুল পরুন।এতে ফোঁড়ানো অংশ পেকে যাওয়ার আশঙ্কা কম থাকে।

রাজধানীসহ সারা দেশে সব গয়নার দোকানে নাকফুল পাওয়া যায়। এছাড়াও আড়ং, দেশিদশের মতো ফ্যাশন হাউজগুলোতেও রয়েছে নাকফুলের বিশাল সংগ্রহ।

বেছে নিন পছন্দের নাকফুল। ছোট একটি নাকফুল রাতের অন্ধকারেও চকচক করে আপনার স্বগর্ব উপস্থিতির জানান দেবে।

মডেল: নওশাবা
ছবি: নূর

comments powered by Disqus
Bookmark and Share
 
© 2014, All right ® reserve by banglanews24.com